ভিভো (Vivo Flying Drone Camera) ফ্লাইং ড্রোন ক্যামেরা ফোন 2022 এর দাম মূল্য কত বাংলাদেশ

ভিভো (Vivo Flying Drone Camera) ফ্লাইং ড্রোন ক্যামেরা ফোন 2022 এর দাম মূল্য কত বাংলাদেশ

কেমন আছেন আশা করি সবাই অনেক ভাল আছেন তো আজকে আপনাদের সাথে আলোচনা করব ভিভোর নতুন মোবাইল ফ্লাইং ড্রোন ক্যামেরা ফোন 2022 মূল্য এবং এই মোবাইলে কি কি থাকছে এবং বাংলাদেশ এর মূল্য কত হবে সকলকে নিয়ে আলোচনা করা হবে?

সপ্ন বাস্তব হতে চলেছে, কেউ কখনো এমন ফোন সম্পর্কে ভাবতেও পারি নি, আজ বিজ্ঞানী সে ফোন মার্কেটে নিয়ে আসছে।

আজকে যে ফোন সম্পর্কে রিভিউ দিচ্ছি, সেফোন হলো ভিভো উরন্ত ফোন, আসলে উরন্ত বলতে ড্রোন ক্যামেরা।
মোবাইল এর ভিতর থেকে ড্রোন ক্যামেরা বের হয়ে যাবে,এবং ছবি তুলে আবার ফোনের ভিতর ফিরে আসবে

ভিভো হল বিশ্বের সবচেয়ে জনপ্রিয় এবং প্রিয় মোবাইল কোম্পানি। এবং এটাও জেনে রাখুন যে ভিভো হল একটি চীনা প্রযুক্তি কোম্পানি যার সদর দপ্তর ডংগুয়ান,গুয়াংডং যেটি স্মার্টফোন, স্মার্টফোনের আনুষাঙ্গিক, সফ্টওয়্যার এবং অনলাইন পরিষেবাগুলি ডিজাইন এবং বিকাশ করে, যা 2009 সালে চীনের ডংগুয়ানে প্রতিষ্ঠিত হয়েছিল।

অন্যান্য কোম্পানিকে পিছে ফেলে ভিভো অনেক খ্যাতি অর্জন করেছে। 

কেমন হয়? ফোন এর ভিতর থেকে ড্রোন ক্যামেরা বের হয়ে গিয়ে ফটো উঠে আবার ফিরে আসবে, অবাক করা প্রযুক্তি।

আজকে এই Vivo Drone Camera Phone 2022 এর রিভিউ নিয়ে আপনাদের মাঝে হাজির হয়েছি।

সেই সাথে জানাব, এই ফোনে কি কি থাকছে ও বাংলাদেশে এই ফোনের দাম কেমন হতে পারে।

ভিভো ই এই প্রথম ড্রোন ক্যামরা ফোন লাঞ্চ করতেছে, ভিভো ব্যাবহারকারীদের জন্য এটি খুশির খবর।

এবার জেনে নেয়া যাক, ভিভো ড্রোন ক্যমেরা ফোন দেখতে কেমন ও কি কি ফিচার থাকছে ও মুল্য কতঃ
——————————————————————————-

দেখে নিন, সে স্বপ্নের ফোন –

ভিভো (Vivo Flying Drone Camera) ফ্লাইং ড্রোন ক্যামেরা ফোন 2022 মূল্য বাংলাদেশ
ভিভো (Vivo Flying Drone Camera) ফ্লাইং ড্রোন ক্যামেরা ফোন 2022 মূল্য বাংলাদেশ
ভিভো (Vivo Flying Drone Camera) ফ্লাইং ড্রোন ক্যামেরা ফোন 2022 মূল্য বাংলাদেশ

ব্র্যান্ড: ভিভো

মডেল: ভিভো ফ্লাইং ক্যামেরা ফোন

স্থিতি: আসন্ন

নেটওয়ার্ক: 4G এবং 5G

ডিসপ্লে: 6.9” ইঞ্চি সুপার অ্যামোলেড ফুল টাচ স্ক্রিন ডিসপ্লে, যা কর্নিং গরিলা গ্লাস 7 দ্বারা সুরক্ষিত।

প্রসেসর: Snapdragon 898 5G মোবাইল প্ল্যাটফর্ম।

RAM: 12GB

অভ্যন্তরীণ স্টোরেজ: 256/512 জিবি

অপারেটিং সিস্টেম: অ্যান্ড্রয়েড 12

রিয়ার ক্যামেরা: Quad 200MP ফ্লাইং ড্রোন ক্যামেরা 32 MP 16 MP 5 MP।

সেলফি ক্যামেরা: একক 64MP

চার্জিং: দ্রুত ব্যাটারি চার্জিং (55W)

ব্যাটারি: Li-Polymer 6900 mAh অপসারণযোগ্য।

· সেন্সর: ফিঙ্গারপ্রিন্ট, ফেস আইডি, অ্যাক্সিলোমিটার, গাইরো, প্রক্সিমিটি, কম্পাস, ব্যারোমিটার।

ওয়্যারলেস চার্জিং সমর্থিত।

আশা করি এই ফোন এর বিষয়ে সকল রিভিউ দেখেছেন, এবার আসি এই ফোন টির দাম কত হতে পারে বাংলাদেশে।

  • বাংলাদেশে এই ফোনটি লাঞ্চ হলে দাম হতে পারে ১ লক্ষ টাকার মতো।

 আজকে এপযন্ত, আবার কোনো আপডেট নিয়ে হাজির হব, সে পযন্ত ভাল থাকবেন, পরবর্তী আপডেট এর জন্য অপেক্ষা করুন। 

Leave a Reply

Your email address will not be published.