অনার্স ভর্তি হতে কত পয়েন্ট লাগবে ২০২২ | কোন কলেজে ভর্তি হতে কত পয়েন্ট লাগবে ২০২২

অনার্স ভর্তি হতে কত পয়েন্ট লাগবে ২০২২ | কোন কলেজে ভর্তি হতে কত পয়েন্ট লাগবে ২০২২|জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের সকল কলেজে অনার্স ভর্তির যোগ্যতা 2022। জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীন কলেজগুলোতে স্নাতক (সম্মান) অনার্স প্রথম বর্ষে ভর্তির ন্যূনতম যোগ্যতা

অনার্স ভর্তি হতে কত পয়েন্ট লাগবে ২০২২

২০২১-২০২২ শিক্ষাবর্ষে অনার্স ১ম বর্ষ স্নাতক (সম্মান) শ্রেণীতে মানবিক/বিজ্ঞান/ব্যবসায় শিক্ষা শাখা থেকে ভর্তির সাধারণ শর্তাবলীগুলো হল:

► বাংলাদেশে স্বীকৃত যে কোন শিক্ষা বোর্ড/উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের মানবিক শাখা থেকে ২০২১/২০২২ সালের এসএসসি ও সমমান পরীক্ষায় ন্যূনতম জিপিএ ২.৫ এবং ২০২১/২০২২ সালের এইচএসসি ও সমমান পরীক্ষায় ৪র্থ বিষয়সহ ন্যূনতম জিপিএ ২.৫ প্রাপ্ত প্রার্থীরা আবেদন করতে পারবে।

► বাংলাদেশে স্বীকৃত যে কোন শিক্ষা বাের্ড/উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের বিজ্ঞান ও ব্যবসায় শিক্ষা শাখা থেকে ২০২১/২০২২ সালের এসএসসি ও সমমান পরীক্ষায় ন্যূনতম জিপিএ ৩.০ এবং ২০২১/২০২২ সালের এইচএসসি ও সমমান পরীক্ষায় ৪র্থ বিষয়সহ ন্যূনতম জিপিএ ২.৫ প্রাপ্ত প্রার্থীরা আবেদন করতে পারবে।

► ২০২১/২০২২ সালের O-Level পরীক্ষায় তিনটি বিষয়ে ‘বি’ গ্রেডসহ অন্তত ০৪ (চার) টি বিষয়ে উত্তীর্ণ এবং ২০২১/২০২২ সালের A- Level পরীক্ষায় একটি বিষয়ে ‘বি’ গ্রেডসহ অন্তত ০২ (দুই) টি বিষয়ে উত্তীর্ণ প্রার্থীরা এ ভর্তি কার্যক্রমে আবেদন করতে পারবে তবে প্রার্থীদের ভর্তি নির্দেশিকার অন্যান্য সকল শর্ত পূরণ করতে হবে। এ সকল প্রার্থীদের ডীন, স্নাতকপূর্ব শিক্ষা বিষয়ক স্কুল, জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ে সরাসরি যোগাযোগ করতে হবে।

► প্রার্থীদের উচ্চ মাধ্যমিক ও সমমান পরীক্ষায় পঠিত বিষয়সমূহ থেকে ভর্তি যােগ্য (Eligible) বিষয় নির্ধারণ করা হবে। উক্ত পঠিত বিষয়ে (২০০ নম্বরের) ন্যূনতম গ্রেড পয়েন্ট ৩.০ থাকতে হবে।

► উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষায় গার্হস্থ্য অর্থনীতি শাখা থেকে উত্তীর্ণ শিক্ষার্থী মানবিক শাখার আবেদন ফরম পূরণ করবে।

► বিদেশী সার্টিফিকেটধারী প্রার্থীদের ক্ষেত্রেও বাংলাদেশ-এ স্বীকৃত যে কোন শিক্ষা বোর্ড কর্তৃক তাদের অর্জিত মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক পর্যায়ের নম্বর পত্রের সমতা নিরূপণ করা হলে তারাও ভর্তির প্রাথমিক আবেদন করতে পারবে। বিদেশী সার্টিফিকেটধারী প্রার্থীদের আবেদনের ক্ষেত্রে ভর্তি নির্দেশিকার সকল শর্ত পূরণ করতে হবে। এ সকল প্রার্থীদেরকে ডীন, স্নাতকপূর্ব শিক্ষা বিষয়ক স্কুল, জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ে সরাসরি যোগাযোগ করতে হবে।

► আবেদনকারী উচ্চ মাধ্যমিক/সমমান পরীক্ষায় যে শাখা থেকে উত্তীর্ণ হয়েছে তাকে সেই শাখার জন্য নির্ধারিত ভর্তির প্রাথমিক আবেদন ফরম পূরণ করতে হবে। উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষায় গার্হস্থ্য অর্থনীতি শাখা থেকে উত্তীর্ণ শিক্ষার্থীর মানবিক শাখার আবেদন ফরম পূরণ করতে হবে।

কোন কলেজে ভর্তি হতে কত পয়েন্ট লাগবে ২০২২

যাদের এসএসসি ও এইচএসসি মিলে মোট পয়েন্ট (৫-৬) এর ভিতর কিংবা যাদের পয়েন্ট কম কিন্তু অনার্সে ভর্তি হতে ইচ্ছুক তাদের জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের অধিভুক্ত বেসরকারি কলেজে ভর্তির আবেদন করতে হবে। কারণ এই পয়েন্ট নিয়ে সরকারি কলেজে চান্স পাওয়া অনেক কঠিন। তবুও গ্রাম পর্যায়ের সরকারি কলেজে আবেদন করা যেতে পারে। তবে যাদের পয়েন্ট একেবারেই কম তাদের সরকারি কলেজে আবেদন না করাই ভালো, করলে পরবর্তীতে পস্তাতে হবে।

এসএসসি ও এইচএসসি মিলে যাদের পয়েন্ট (৬-৮) এর ভিতর কিংবা যাদের পয়েন্ট মোটামুটি ভালো তারা উপজেলা পর্যায়ের সরকারি কলেজ গুলোতে আবেদন করলে চান্স পাওয়ার সম্ভাবনা থাকবে। তাদের পয়েন্ট অনুযায়ী কলেজ নির্বাচন করে সঠিকভাবে বিষয় চয়েস দিতে হবে। তবে অনেক সময় জেলা পর্যায়ের সরকারি কলেজে এই পয়েন্ট নিয়ে চান্স পাওয়ারও সম্ভাবনা থাকে। এক্ষেত্রে দেখেশুনে কলেজ নির্বাচন এবং বিষয় চয়েস দেওয়ার বিষয়টি মাথায় রাখতে হবে।

যাদের এসএসসি ও এইচএসসি মিলে মোট পয়েন্ট (৮-১০) এর মধ্যে কিংবা পয়েন্ট খুব ভালো তারা জেলা এবং বিভাগীয় পর্যায়ের সরকারি কলেজগুলোতে আবেদন করতে পারেন। তবে বিজ্ঞান ও ব্যবসায় শিক্ষা বিভাগের শিক্ষার্থীদের যাদের পয়েন্ট বেশি ভালো তাদের জেলা পর্যায়ের ভালো কলেজে চান্স পাওয়ার সম্ভাবনা থাকবে। তবে বিজ্ঞান বিভাগের ক্ষেত্রে ৯.৫০ এর নীচে থাকলে ভালো কলেজে আবেদন করা উচিত নয়। কারণ এবার জিপিএ-৫ এর সংখ্যা অনেক বেশি। বিজ্ঞানের শিক্ষার্থীদের মোট পয়েন্ট ১০ এর কম থাকলে ভালো কলেজে আবেদন করলেও মনমত বিষয় নাও পেতে পারেন।

জেলা ভিত্তিক কলেজ গুলোতে প্রতিযোগিতা অনেক বেশি তাই অনেক ভালো রেজাল্টের দরকার হয়। কিন্তু উপজেলা ভিত্তিক সরকারি কলেজ গুলোতে প্রতিযোগিতা তুলনামূলক একটু কম, তাই যাদের পয়েন্ট একটু কম তারা অবশ্যই উপজেলা ভিত্তিক সরকারি কলেজ গুলোতে চয়েজ দিবেন। তাহলে সম্ভাবনা থাকে ভালো সাবজেক্ট এ ভর্তি হওয়ার। যাদের পয়েন্ট বেশি কম তারা ভুলেও সরকারি কলেজে আবেদন করবেন না। আপনাদের সরকারি কলেজে চান্স পাওয়ার সম্ভাবনা কম।

জাতীয় বিশ্ববিদ্যালয়ের জেলা ভিত্তিক বা উপজেলা ভিত্তিক সকল সরকারী কলেজ এর মানে একই যদি কম পয়েন্ট নিয়ে জেলা ভিত্তিক সরকারি কলেজে চান্স না পান তখন রিলিজ স্লিপ দিয়ে দিবে, আর রিলিজ স্লিপে অন্যান্য কলেজ গুলোতে সিট অনেক কম থাকে।

যারা ১ম ও ২য় মেধা তালিকায় চান্স পাবেন না তারা পরবর্তীতে রিলিজ স্লিপের মাধ্যমে ৫ টি কলেজে ভর্তির আবেদন করতে পারবেন৷ আসন খালি থাকা সাপেক্ষে এসব কলেজে ভর্তির সুযোগ থাকবে৷

Admissions NU Admission Apply Online Honours 1st Year 2021-22

www.nu.ac.bd admission 2021-22 Circular

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *